নাচোলে র‌্যাবের সোর্স পরিচয়ে দুই যুবকের চাঁদাবাজিতে অতিষ্ঠ এলাকাবাসি

53

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোল উপজেলার নিজামপুর ইউনিয়নের খড়িবাড়িতে র‌্যাবের সোর্স পরিচয়ে রনি ও আজিম নামে দুই যুবকের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি ও নিরীহ লোকজনকে হয়রানীর অভিযোগ উঠেছে। তাদেও অত্যাচাওে অতিষ্ট হয়ে উঠেছেন এলাকার সাধারণ মানুষ। রোববার দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন খড়িবাড়ি গ্রামের অধিবাসিরা।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে খড়িবাড়ি গ্রামের ধান চাল ব্যবসায়ী আলহাজ্ব মোঃ ফজলুর রহমান বলেন, গত তিন বছর ধরে নিজেদের র‌্যাবের সোর্স পরিচয় দিয়ে এলাকায় চাঁদাবাজি করে আসছে একই গ্রামের মৃত কেরামত আলীর ছেলে রনি (২৮) ও মোহাম্মদ আলীর ছেলে আজিম (৩৫)। চাঁদা না দিলে র‌্যাবকে মিথ্যা তথ্য দিয়ে বিভিন্নজনকে হয়রানী করছে তারা। তিনি অভিযোগ করেন, গত ১৬ জানুয়ারি বিকেলে রনি ও আজিম খড়িবাড়ি বাজারে তার ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানে গিয়ে তার কাছে ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে। চাঁদা না দেয়ায় ওই দিন সন্ধ্যার পর তারা আবারো দোকানে গিয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজসহ নানারকম হুমকি দেয়। এসময় স্থানীয় লোকজন তাদের ধরে পিটুনি দেয়। এই ঘটনার পর থেকে গ্রামবাসিকে মিথ্যা ও সাজানো মামলায় ফাঁসানোর জন্য বিভিন্ন ধরনের হুমকি দিচ্ছে রনি ও আজিম। এতে করে আতংকিত এলাকাবাসি নির্ঘুম রাত কাটাচ্ছেন। এর আগেও চাঁদা না দেয়ায় খড়িবাড়ি গ্রামের ফজলুর রহমান, আনোয়ার ও মনিরুল ইসলাম নামের তিন ব্যাক্তিকে র‌্যাব দিয়ে হয়রানীর হুমকি দেয় তারা। সংবাদ সম্মেলনে ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত দাবী করে রনি ও আজিমের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি দাবি জানানো হয়। এসময় গ্রামের অধিবাসি ইলিয়াস উদ্দিন, মনিরুল ইসলাম,আনোয়ার হোসেনসহ গ্রামের অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।
এব্যপারে চাঁপাইনবাবগঞ্জ র‌্যাব ক্যাম্পে যোগাযোগ করা হলে নাম প্রকাশে অনুচ্ছুক এক কর্মকর্তা জানান, নাচোলে রনি ও আজিম নামে তাদের কোন সোর্স নেই। কেউ অভিযোগ করলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।