এক নবজাতকের দায়িত্ব নিলেন শিবগঞ্জ ইউএনও : নাম দেয়া হলো মুক্তি

47

চাঁপাইনবাবগঞ্জে শিবগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে একটি ফুট ফুটে কণ্যা সন্তানের জন্ম দেন নাম না জানা এক পাগলি। জানাগেছে, ৩৫ বছর বয়স্ক একজন নারী সম্প্রতি শাহবাজপুর ইউনিয়নের মুসিলমপুর এলাকায় ঘোরাফেরা করে। সোমবার ভোরে ওই এলাকার একটি কুড়ে ঘরে পাগলি ব্যাথায় ছটপট করতে থাকে। বিষয়টি স্থানীয় নাসিমা ও সামসুন্নাহার নামে দুই মহিলা দেখতে পেয়ে দ্রুত তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সেখানে নেয়ার পর একটি কণ্যা সন্তানের জন্ম দেয় সে। হাসপাতেলর আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা.আজিজুল ইসলাম জানান, বর্তমানে মা ও নবজাতক দুজনেই সুস্থ্য থাকায় ছাড় দেয়া হয়েছে। তিনি আরও জানান, নবজাতকের মা তার নিজের নাম পরিচয় বলতে না পারায় বিষয়টি উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তাকে জানানো হয়। খবর পেয়ে সমাজ সেবা কর্মকর্তা কাঞ্চন কুমার তাৎক্ষনিক হাসপাতালে গিয়ে নবজাতক ও মায়ের খোঁজ খবর নিয়ে চিকিৎসা খরচ বাবদ তিন হাজার টাকা প্রদান করেন এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে জানান। শিবগঞ্জ উপজেলা নির্বার্হী কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম নবজাতক ও তার মাকে নিজের বাসায় নিয়ে নবজাতককে কোলে তুলে নেন। এসময় তিনি নগদ ৫ হাজার টাকা প্রদান করেন। এছাড়াও তিনি নবজাতক এবং তার মায়ের বসবাসের জন্য একটি জমি দেখে ঘর বানিয়ে দেয়ার আশ্বাস দেন। ইউএনও শফিকুল ইসলাম জানান, স্বাধীনতার মাসে জন্ম নেয়ায় নবজাতক শিশুটির নাম রাখা হয়েছে মুক্তি। নবজাতক এবং তার মাকে বর্তমানে মুসলিমপুর গ্রামের দুরুল হোদার স্ত্রী নাসিমা বেগমের কাছে রাখা হয়েছে।